বেনাপোলে চুরির ১০ দিন অতিবাহিত হলেও আসামি ও পণ্য উদ্ধারে কোন তৎপরতা না থাকার অভিযোগ

0
63

বেনাপোল প্রতিনিধি

বাড়ি থেকে স্বর্ণ চুরির ১০ দিন অতিবাহিত হলেও উদ্ধার কাজের কোন অগ্রগতি নেই বলে অভিযোগ উঠেছে। গত ১৬ ডিসেম্বর বেনাপোলের ছোটআঁচড়া গ্রামের দিপংকর বিশ্বাস এর বাড়িতে সকলের অনুপস্থিতি বাড়ির তালা ভেঙ্গে প্রবেশ করে অজ্ঞাত নামা কিছু ব্যক্তি। সিসি ক্যামেরায় চোর চক্রদের দেখা গেলেও এখনও কোন আসামি আটক বা থানায় মামলা হয়নি। গত ১৭ ডিসেম্বর বেনাপোল পোর্ট থানায় ৩০/৩৫ ভরি স্বর্ণ অলংকার চুরি হওয়ার বিষয়ে দিপংকর বিশ্বাস বাদি হয়ে একটি অভিযোগও দায়ের করেছে বলে জানান তার ছেলে উজ্জল বিশ্বাস।

সোমবার বিশিষ্ট সিএন্ডএফ ও আমদানি কারক ব্যবসায়ি উজ্জল বিশ্বাস জানান, তারা ঘরের দরজা জানালা বন্ধ করে তালা দিয়ে যশোর যায়। সেখান থেকে তারা ওই দিন আনুমানিক সন্ধ্যা সাড়ে ৭ টার সময় বাড়ি ফিরে দেখে ভিতর থেকে বাড়ির প্রধান গেট বন্ধ করা। তারা তালা খুলে ভিতরে প্রবেশ করতে পারছে না। পরে প্রতিবেশীদের সহযোগিতায় বাড়ির ভিতর প্রবেশ করে দেখি ঘরের আলমারি সহ অন্যান্য আসবাবপত্র ভাঙ্গা ও এলমেলো। এরপর আলমারির মধ্যে রাখা গয়না পাওয়া যায়নি। সেখানে প্রায় ২৪ লাখ টাকা মুল্যের ৩০ থেকে ৩৫ ভরি স্বর্ণর অলংকার ছিল। পরের দিন বেনাপোল পোর্ট থানায় আমরা অজ্ঞাত নামা আসামি করে একটি অভিযোগ দায়ের করি। এরপরও কোন অগ্রগতি হয়নি। সিসি ক্যামেরার ভিডিও ফুটেজ অনুযায়ী আসামিদের আটক করলে মালামাল উদ্ধার হবে বলে আমরা আসাবাদি। এব্যাপারে থানায় কয়েকদফায় যোগাযোগ ও মামলা রুজুর কথা বললেও কোন ফলাফল মেলেনি।

বেনাপোল পোর্ট থানার ওসি মামুন খান বলেন, বিষয়টি নিয়ে আমরা কাজ করছি। মামলা হবে কি না জানতে চাইলে তিনি বলেন মামলা হবে । কিছু আলামত এর প্রয়োজন আছে। সিসি ক্যামেরার ফুটেজ এর কথা বললে তিনি বলেন আমাদের এসব দিয়ে সাহায্য করলে কাজের অগ্রগতি আরো অগ্রসর হবে। তাদের সিসি ক্যামেরার ফুটেজ দিতে বলুন।