আগামীকাল ষষ্ঠ ধাপে ইউপি নির্বাচনের তফসিল

0
59

সত্যপাঠ ডেস্ক

জাতীয় সংসদ নির্বাচনের বিধিমালা এবং রাজনৈতিক দল ও প্রার্থীর আচরণ বিধিমালা সংশোধন নিয়ে বসছে নির্বাচন কমিশন (ইসি)। মেয়াদের শেষ সময়ে এ দুই বিধিমালায় কয়েকটি সংশোধনী আনতে চান প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) কে এম নূরুল হুদা। এর মধ্যে অন্যতম হচ্ছে- পোস্টাল ব্যালটে ভোট দেয়ার প্রক্রিয়ায় সংশোধনী আনা।

আগামীকাল শনিবার (১৮ ডিসেম্বর) অনুষ্ঠিতব্য কমিশনের ৯২তম সভায় এ দুটি আচরণ বিধিমালা সংশোধনের বিষয়টি এজেন্ডায় রাখা হয়েছে। ওই সভায় চলমান ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) ষষ্ঠ ধাপের (শেষ ধাপ) নির্বাচনের তফসিল অনুমোদন করার কথা রয়েছে। ইসি সূত্রে এসব তথ্য জানা গেছে। প্রসঙ্গত, আগামী ১৪ ফেব্রুয়ারি বর্তমান কমিশনের মেয়াদ শেষ হবে।

জানা গেছে, জাতীয় সংসদ নির্বাচনের প্রধান আইন গণপ্রতিনিধিত্ব আদেশ, ১৯৭২ এর কয়েকটি ধারায় সংশোধনী আনার প্রস্তাবনা আইন মন্ত্রণালয়ে রয়েছে। ওই সংশোধনী জাতীয় সংসদে পাস হওয়ার আগেই জাতীয় সংসদের ‘নির্বাচন পরিচালনা বিধিমালা, ২০০৮’ এবং ‘সংসদ নির্বাচনে রাজনৈতিক দল ও প্রার্থীর আচরণ বিধিমালা, ২০০৮’ এ সংশোধনী আনতে যাচ্ছে কমিশন।

জানা গেছে, নির্বাচন বিধিমালায় পোস্টাল ব্যালটে ভোট দেয়া সংক্রান্ত সংশোধনী আনার প্রস্তাব উঠছে। আরপিওর সংশোধনী প্রস্তাবে প্রতিবন্ধী ব্যক্তি ও ৮০ বছরের বেশি বয়স্ক ভোটারদের ভোট দেয়ার সুবিধার্থে পোস্টাল ব্যালট ব্যবহারের ধারা যুক্ত করা হয়। এর যৌক্তিকতায় বলা হয়, ভোটার নিবন্ধন ফরমের ক্রমিক ২১ এ দৃষ্টি, শ্রবণ, বাক ও শারীরিক প্রতিবন্ধীদের তথ্য ইসির কাছে রয়েছে। এ বিষয়টি নির্বাচন বিধিমালায় সংশোধনের প্রস্তাব উঠতে যাচ্ছে।

এদিকে শনিবার অনুষ্ঠিতব্য কমিশনের সভায় ষষ্ঠ ধাপের ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনের তফসিল চূড়ান্ত করার কথা রয়েছে। কমিশন সভা শেষে এ ধাপের নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা করা হতে পারে। এর মধ্য দিয়ে ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনের সমাপ্তি ঘটতে যাচ্ছে। এর আগে দেশে প্রায় সাড়ে চার হাজার ইউপি’র মধ্যে ইতোমধ্যে পাঁচটি ধাপের তফসিল ঘোষণা করা হয়েছে। যার মধ্যে তিনটি ধাপে ভোট সম্পন্ন হয়েছে। চতুর্থ ধাপে আগামী ২৬ ডিসেম্বর ৮৪২টি এবং পঞ্চম ধাপে ৫ জানুয়ারি ৭০৭টি ইউপিতে ভোট নেবে ইসি।

কমিশন সভার আলোচ্যসূচির মধ্যে আরো রয়েছে: স্থানীয় সরকার প্রতিষ্ঠানের অন্যান্য নির্বাচন ও উপনির্বাচন এবং বীর মুক্তিযোদ্ধাদের জন্য জাতীয় পরিচয়পত্রের নমুনা।