প্রধানমন্ত্রী শিশুদের জন্য শিশুপার্কসহ বিভিন্ন স্থাপনা নির্মাণের কাজ করে চলেছেন : খুলনার বিভাগীয় কমিশনা

0
65

মঈন উদ্দিন, ফুলতলা

খুলনার বিভাগীয় কমিশনার ইসমাইল হোসেন এনডিসি বলেছেন, শিক্ষাই জাতির মেরুদন্ড আর শিশুরাই জাতির ভবিষ্যৎ। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা শিশুদের শারিরীক ও মানসিক বিকাশের জন্য শিশুপার্কসহ বিভিন্ন স্থাপনা নির্মানের কাজ করে চলেছেন। কোভিড- ১৯ সংকটে যখন সারা বিশ্ব বিপর্যস্ত ঠিক তখনই বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী দেশকে এগিয়ে নিয়ে চলেছেন তার দক্ষ নেতৃত্বে। শত সংকটের মাঝেও আজ দেশের জিডিপি বেড়েছে।

তিনি আরও বলেন, মুজিব বর্ষের উপহার সারাদেশে বাস্তুহারাদের জমিসহ ঘর প্রদান উন্নয়নের এক বিরল দৃষ্টান্ত। তিনি এই করেনাকালীণ দুঃসময়ে সকলকে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার পরামর্শ প্রদান করেন। তিনি বৃহস্পতিবার সকাল ১১ টায় ফুলতলা উপজেলা শিশুপার্ক (ফুলকুঁড়ি), মুক্তমঞ্চ (বুকলমঞ্চ), ডিজিটাল সেন্টার, ব্যাডমিন্টন কোর্ট, লাইব্রেরী, মটর সাইকেল গ্যারেজ, তহশীল অফিস উদ্বোধন ও অফিসারদের সাথে মতবিনিময়কালে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় একথা বলেন।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন খুলনার জেলা প্রশাসক মনিরুজ্জামান তালুকদার, উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আলহাজ্ব শেখ আকরাম হোসেন, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সাদিয়া আফরিন, সহকারী কমিশনার (ভূমি) রুলী বিশ্বাস, উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. জেসমিন আরা, ওসি (তদন্ত) মোস্তফা হাবিবুল্লাহ, উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান কে.এম জিয়া হাসান তুহিন, ইউপি চেয়ারম্যান শরীফ মোহাম্মদ ভূঁইয়া শিপলু, শেখ আবুল বাশার ও মাও. সাইফুল হাসান, উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা কৃষিবিদ ইনসাদ ইবনে আমিন, সিনিয়র উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা রনজিৎ কুমার রায়, ভেটনারী সার্জন ডা. তরিকুল ইসলাম, ফুলতলা প্রেসক্লাবের সভাপতি, উপজেলা দূর্নীতি প্রতিরোধ কমিটি ও বাজার বণিক কল্যাণ সোসাইটির সহ-সভাপতি এস এম মোস্তাফিজুর রহমান, উপজেলা পল্লী উন্নয়ন কর্মকর্তা আফরুজ্জামান, সমাজসেবা কর্মকর্তা শাহিন আলম, যুব উন্নয়ন কর্মকর্তা পারভেজ মোল্যা, মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা ফাতেমা খাতুন, শিক্ষা কর্মকর্তা আবুল কাশেম, মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা ফারহানা ইয়াসমিন, পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা সেলিনা খাতুন, ইউ.আর.সি ইন্সট্রাকটর রবিউল ইসলাম রনি, আইসিটি কর্মকর্তা পুষ্পেন্দু দাস, উপ- সহকারী পরিচালক (বীজ) আনোয়ার হোসেন প্রমুখ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here