আশাশুনিতে জমিজমা সংক্রান্ত বিরোধে আহত-৪

0
17

আশাশুনি প্রতিনিধি

আশাশুনি উপজেলার কুল্যা ইউনিয়নের আগরদাড়ীতে জমিজমা সংক্রান্ত বিরোধে এক মহিলাসহ ৪ জন আহত হয়েছে। এ ঘটনায় আশাশুনি থানায় আগরদাড়ী গ্রামের মৃত নূর আলী সরদারের ছেলে হাফিজুল ইসলাম বাদী হয়ে ১ নম্বর মামলা দায়ের করা হয়েছে।

মামলা সূত্রে জানাগেছে, আগরদাড়ী গ্রামের মৃত দেলদার সরদারের ছেলে আব্দুল হাকিম গংরা বাদীর ভিটাবাড়ির জমি বিভিন্নভাবে দখলের ষড়যন্ত্র করে আসছিল। উক্ত জমি বাদীপক্ষ আশাশুনি সহকারী জজ আদালত হতে রায় ও ডিগ্রীপ্রাপ্ত হয়ে (যার মামলা নং-৮২/০৯) শান্তিপূর্ণভাবে ভোগ দখল করে আসছেন।

কিন্তু গত ২৫জুন শুক্রবার সকাল আনুমানিক ১০টার সময় আগরদাড়ী গ্রামের মৃত দেলদার সরদারের ছেলে আব্দুল হাকিম, তার ছেলে আল আমিন, ভাই আব্দুস সাত্তার সরদার, আব্দুস সাত্তারের ছেলে আব্দুর রশিদ ও সিদ্দীক সরদার, আব্দুর রাজ্জাক এর ছেলে আহসান উল্লাহ ও বিল্লাল সরদার এবং একই গ্রামের জালাল সরদারের ছেলে আজহারুল হকসহ অজ্ঞাত আসামীরা পূর্ব পরিকল্পিতভাবে দা, চাইনিজ কুড়াল, হাতুড়ী, শাবলসহ দেশীয় অস্ত্রেশস্ত্রে সজ্জিত হয়ে বাদীর বসত বাড়িতে অনাধিকার প্রবেশ করে জমি দখলের উদ্দেশ্যে বেআইনিভাবে ঘেরাবেড়া দিতে থাকে ও অশ্লিল ভাষায় গালিগালাজ করতে থাকে। বিষয়টি মৌখিকভাবে প্রতিবাদ করতে করতে গেলে আব্দুল হাকিম নিজে ও তার হুকুমে আসামীরা বাদী হাফিজুল ইসলাম, তার স্ত্রী ফিরোজা খাতুন, ভাই কাফিজুল ইসলাম ও ভাইপো রাকিবুলকে মারপিট করে হাড়ভাঙ্গা মারাত্মক জখম করে। এর ভিতরে হাফিজুল ও কাফিজুল এর হাত ভেঙে দেওয়া হয় এবং মাথায় কাটাযুক্ত আঘাত করা হয়।

এছাড়াও হাফিজুল এর স্ত্রীকে মারপিট করে শ্লীতহানি করে এবং রাকিবুল এর পায়ে হাড়কাটা জখম করে। এসময় হাফিজুল এর পকেটে থাকা ব্যবসার নগদ ২৫ হাজার টাকা ছিনিয়ে নেয় ও বাড়ির আসবাবপত্র ভাংচুর করে আনুমানিক ১০ হাজার টাকার ক্ষতি সাধন করে বিভিন্ন ধরনের ভয়ভীতি দেখিয়ে আসামীরা চলে যায়। পরে বাদীদের ডাক চিৎকারে স্বাক্ষীরা উপস্থিত হয়ে থানায় ফোন করিলে আশাশুনি থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে এসে মারপিটের ব্যবহার করা দা ও অন্যান্য আলামতসহ তাদের উদ্ধার করে আশাশুনি হাসপাতালে প্রেরণ করে। পরে হাফিজুল ও কাফিজুল এর অবস্থা আশংঙ্খাজনক অবস্থায় তাদের সাতক্ষীরা সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here