মোবাইল ফোনে গেম খেলা নিয়ে দ্বন্ধ, ৬ জনের নামে মামলা

0
37

বিশেষ প্রতিনিধি

যশোর সদর উপজেলার আড়পাড়া সাহাপুর গ্রামে চাচাতো ভাইকে মারপিটের প্রতিবাদ করায় মেহেদী হাসান (৩০) নামে একজনকে মারপিটে মারাত্মক জখম করার অভিযোগে কোতয়ালি থানায় মামলা হয়েছে। ঘটনাটি ঘটেছে গত ৩০ জুন সন্ধ্যা সাড়ে ৭টায়। মেহেদী হাসান ওই গ্রামের মাহাতাব উদ্দিনের ছেলে। এই ঘটনায় মেহেদী হাসানের স্ত্রী সাবরিনা সিদ্দিকী ৬ জনের নাম উল্লেখ করে কোতয়ালি থানায় মামলা করেন।

আসামিরা হলো, আড়পাড়া গ্রামের জিন্নাত আলীর ছেলে রিন্টু হোসেন (২০), শাহাদৎ হোসেনের ছেলে হায়দার আলী (৩৫), ইমরাত হোসেনের ছেলে সাকিব হোসেন (২১), রাসেল হোসেন (২২), রেজাউল ইসলামের ছেলে মজনু হোসেন এবং আজিবরের ছেলে রাশেদ হোসেন (২১)।

মামলায় উল্লেখ করে, মেহেদী হাসানের চাচাতো ভাই সবুজের (১৯) সাথে মোবাইলে গেম খেলা নিয়ে আসামিদের সাথে তর্কবিতর্ক হয়। আসামিরা গত ৩০ জুন বিকেলে সবুজকে মারপিট করে। বিষয়টি বাড়িতে জানালে মেহেদী হাসান ও তার চাচতো ভাই সুরুজ, নিপু, উজ্জল ওই দিন সন্দ্যর দিকে আসামিদের কাছে জিজ্ঞাসা করতে যায়। সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে গ্রামের ইউসুফ ফকিরের বাড়ির সামনে আসামিদের পেয়ে মারার কারণ জিজ্ঞাসা করলে আসামিরা ক্ষিপ্ত হয়। এবং লাঠি সোটা, লোহার রডসহ দেশি অস্ত্র দিয়ে মেহেদীকে বেধড়ক মারপিট করে।

এই ঘটনার পর আসামিরা ফের হত্যার হুমকি দিয়ে চলে যায়। পরে মেহেদীকে মারাত্মক জখম অবস্থায় উদ্ধার করে প্রথমে যশোর জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পরে অবস্থার অবনতি হওয়ায় তাকে চিকিৎসকের পরামর্শে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here