আশাশুনির বেউলায় সম্পত্তি জবর দখল করার ষড়যন্ত্র, ক্রয়কৃত মালিকগন দিশেহারা ॥ প্রশাসনের হস্তক্ষেপ কামনা

0
32

আশাশুনি প্রতিনিধি

আশাশুনি উপজেলার বুধহাটা ইউনিয়নের বেউলায় বিক্রয়কৃত সম্পত্তি পুনরায় জবর দখল করার ষড়যন্ত্রে দিশেহারা হয়ে পড়েছেন ক্রয়সূত্রে ভোগ দখলীয় সম্পত্তির মালিকগন। ওই গ্রামের ভূক্তভোগী সেলিম রেজা ওরফে রেজাউল ইসলাম জানান, উপজেলার বুধহাটা ইউনিয়নের বেউলা গ্রামের ঈমান আলী সরদারের মৃতান্তে দু’স্ত্রীর সন্তানরা ওয়ারেশ থাকেন। এ সব ওয়ারেশদের মধ্যে বেউলা মৌজায় আরএস ৮৬৯ ও ৫১৭ নং খতিয়ানে হাল ৩৩৯৪, ৩৩৯৫, ৩৪১৮ সহ বিভিন্ন দাগে ওই গ্রামের কেরামত আলী সরদার ও তার স্ত্রী-পুত্রদের নামে ভিন্ন ভিন্ন দলিলে মোট সাড়ে ৭৮শতক জমি ক্রয় করেছেন। ঈমান আলী সরদরের মৃতান্তে তার ওয়ারেশ স্ত্রী, পুত্র ও কন্যাদের নিকট থেকে উল্লেখিত আরএস খতিয়ানের সম্পত্তি হতে ৪৮০৬/৯৩, ১৬৭/৯৫, ২৩৮২/৯৯, ২৭৩৩/০৭, ৫৮৯/১৩ ও ১৫৯০/১৫ নং দলিল মূলে সাড়ে ৭৮ শতক সম্পত্তি ক্রয় করেন ওই গ্রামের কেরামত আলী সরদার ও তার স্ত্রী-পুত্ররা।

ক্রয় করার পর থেকে দাতাগন তাদের ভোগ দখলীয় সম্পত্তি থেকে বিক্রিত মতে গ্রহিতাগনের মৌখিকভাবে জমির দখল বুঝে দেন। সে থেকে কেরামত আলী সরদার ও তার পরিবার শান্তিপূর্ণভাবে ভোগ দখলে রয়েছেন। কিন্তু বর্তমানে দাতাগন বিক্রিত সম্পত্তির ফাকফোকড় খুজে বেদখল বা জবর দখল করার ষড়যন্ত্রের অংশ হিসাবে দাতাগন কর্তৃক আদালত, থানা, এসপি অফিসসহ বিভিন্ন মহলে আবেদন, অভিযোগ, তদবীর অব্যহত রেখেছেন। ফলে বর্তমানে ভোগ দখলে থাকা কেরামত আলী সরদারের পুত্র সেলিম রেজা ওরফে রেজাঊল ইসলামসহ তার পরিবার দারুনভাবে হতাশাগ্রস্থ ও দিশেহারা হয়ে পড়েছেন। এ ব্যাপারে ভূক্তভোগী সেলিম রেজাসহ তার পরিবার প্রশাসনের উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষের আশু হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here