কার্বন নি:সরণ কমাতে পশ্চিমা তেল কোম্পানিকে আদালতের নির্দেশ

0
50

অনলাইন ডেস্ক

জলবায়ু ইস্যুতে আদালতে হেরে গিয়ে রয়েল ডাচ শেল, এক্সন মবিল এবং শেভরন দ্রুত সময়ের মধ্যে কার্বন নিঃসরণ কমানোর চাপে রয়েছে। এটি সৌদি আরবের জাতীয় জ্বালানি তেল কোম্পানি সৌদি আরামকো, আবুধাবি ন্যাশনাল অয়েল কোম্পানি এবং রাশিয়ার গ্যাজপ্রোম ও রোসনেফ্ট-এর জন্য সুখবর বয়ে এনেছে। খবর রয়টার্স।

লন্ডনভিত্তিক সংস্থা এনার্জি আসপেক্ট-এর পরামর্শক অমৃত সেন বলেন, জ্বালানি তেল ও গ্যাসের চাহিদা বাড়ছে এজন্য পর্যাপ্ত সরবরাহ প্রয়োজন। কিন্তু বর্তমান পরিস্থিতিতে আন্তর্জাতিক জ্বালানি তেল উৎপাদক কোম্পানিগুলোকে বিনিয়োগের অনুমতি দেওয়া হচ্ছে না। এর মানে হলো জাতীয় জ্বালানি তেল উৎপাদক কোম্পানিগুলো এখন তাদের তৎপরতা বাড়াবে।

সম্প্রতি জলবায়ুকর্মীরা নেদারল্যান্ডের (ডাচ) আদালতের রায়ে একটি বড় জয় পেয়েছেন। আদালতের রায়ে বলা হয়েছে, রয়েল ডাচ শেল অয়েল কোম্পানিকে কার্বন নি:সরণের পরিমাণ উল্লেখযোগ্য হারে কমিয়ে আনতে হবে। এর ফলে সংস্থাটির জ্বালানি তেল ও গ্যাসের উৎপাদন কমে যাবে। তবে এ রায়ের বিরুদ্ধে কোম্পানিটি আপিল করবে বলে জানিয়েছে।

একই দিনে যুক্তরাষ্ট্রের এক্সন মবিল ও শেভরন করপোরেশনের মতো শীর্ষ দুটি জ্বালানি তেল উৎপাদক কোম্পানিও আদালতে হেরেছে। কার্বন নিঃসরণের মাধ্যমে জলবায়ু পরিবর্তনে বড় ধরনের প্রভাব ফেলার অভিযোগ ছিলো কোম্পানি দুটির বিরুদ্ধে।

রাশিয়ার জ্বালানি তেল ও গ্যাস উৎপাদক গ্রুপ গ্যাজপ্রমের উচ্চ পর্যায়ের এক কর্মকর্তা রসিকতা করে বলেন, মনে হচ্ছে পশ্চিমাদেশগুলোকে জ্বালানি তেল সরবরাহের জন্য তাদের আখ্যায়িত ‘শত্রু অঞ্চল’ এর ওপর আরো বেশি নির্ভর করতে হবে।

সৌদি আরামাকোর এক কর্মী বলেন, আদালতের রায়ের পর জ্বালানি তেলের উৎপাদন বাড়ানো আরো সহজ হবে ওপেকের জন্য।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here