মণিরামপুরে পিতার বাড়িতে মানষিক ভারসাম্যহীন মেয়ের আত্মহত্যা

0
97

মণিরামপুর প্রতিনিধি
মণিরামপুরে পিতার বাড়িতে বিষ ট্যাবলেট (কিটনাশক) খেয়ে আত্মহত্যা করেছে দুই ছেলে সন্তানের মা লতা খাতুন (৩০)। সোমবার রাত সাড়ে আটটার দিকে তিনি মারা যান। লতা উপজেলার শমসেরবাগ গ্রামের মৃত আবদুল কাদের জোয়াদ্দারে মেয়ে।
স্থানীয় ইউপি সদস্য জাহাঙ্গীর আলম জানান, প্রায় ১০ বছর আগে লতার বিয়ে হয় বগুড়া জেলার নিশ্চিন্তপুর এলাকার আল মামুন নামে এক যুবকের সাথে। লতার দুই ছেলে (শিশু) সন্তান রয়েছে। লতার ভাই শফিকুল ইসলাম জানান, তার বোন লতা বেশ কয়েকবছর ধরে মানষিক রোগে ভূগছিলেন। ১৫ দিন আগে লতা স্বামী সন্তানসহ পিতার বাড়িতে বেড়াতে আসেন। স্বামী আল মামুন জানান, মানষিক ভারসাম্য হারিয়ে সকলের অজান্তে সোমবার সকালের দিকে লতা বিষ ট্যাবলেট খায়। পরে স্বজনরা টের পেয়ে তাকে প্রথমে যশোর ২৫০ শয্যা হাসপাতালে ভর্তি করে। সেখানে অবস্থার অনতি হলে তাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য সন্ধ্যার পর খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পথে রাত সাড়ে আটটার দিকে তার মৃত্যু হয়। মণিরামপুর থানার ওসি (সার্বিক) রফিকুল ইসলাম জানান, পরিবারের কোন অভিযোগ না থাকায় উর্ধতন কর্তৃপক্ষের নির্দেশনায় লাশের ময়না তদন্ত ছাড়াই দাফনের অনুমতি দেওয়া হয়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here