তরমুজের কেজি ৮০ টাকা সাধারন মানুষের নাগালের বাইরে, বসুন্দিয়া এলাকার বাজার গুলো নিয়ন্ত্রনহীন

0
69

এস, এম মুসতাইন
‘তরমুজ মৌসুমী ফল’ তারপরও সারা বছর চাষ করছে চাষিরা, তরমুজ সু-স্বাদু মিষ্টি ফল, প্রতিটা মানুষই খেতে ভালবাসে, দেখতেও সুন্দর কাটলে টকটকে লাল চোখ জুড়িয়ে মন ভরে যায়। গ্রীস্মের পর ঋতুরাজ বসন্তের সময়টাতে ফলের ছড়াছড়ি বাজারে আগমন ঘটে নানান ধরনের মৃষ্ট জাতের আম, কাঁঠাল, লিচু, জামরুল, পেয়ারা, তরমুজ, বাঙ্গি। তবে তরমুজের চাহিদা একটু বেশী, সবাই পছন্দ করে কিন্তু দামে তো হাতের নাগালের বাইরে।
সাধারন মানুষের ক্রয় ক্ষমতা ছাড়িয়ে যাওয়ায় শুধু দেখে দাম শুনেই আফসোস করতে হচ্ছে। নি¤œ আয় ও গরীবের কপালে একটি তরমুজ খাওয়ার সাধ্য নেই, বর্তমানে যার কেজি হয়েছে ৭০ থেকে ৮০ টাকা। কেটেতো বিক্রি হয় না, পিচ হিসেবে কিনতে হয়, একটি তরমুজ সর্বনিম্ন তিন কেজি, পাঁচ ছয় কেজির বেশিও হয়।
যারফলে হাতের নাগাল ছাড়িয়ে গেলো সাধারন মানুষের ক্রয় ক্ষমতার বাইরে। বসুন্দিয়া এলাকার বাজার গুলো সরোজমিনে ঘুরে কয়েকজন তরমুজ বিক্রেতার সাথে তারা বলেন, চড়া দামে কিনতে হচ্ছে আড়ৎ দারদের কাছ থেকে, যানবাহনের খরচ, লেবার খরচ সব মিলিয়ে লাভ তেমন বেশী হয় না। ক্ষেত মালিকদের কাছ থেকে আড়ৎদার গন তরমুজের ফায়দা লুটে নিয়ে যাচ্ছে বিক্রেতাদের অভিমত।
এদিকে সাধারন মানুষের মন্তব্য তরমুজ বিক্রেতারা কিনছে পিচ হিসেবে বিক্রি করছে কেজিতে এর কারন কি? নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক কয়েকজন আড়ৎদার বলেন, মানসম্মত, মাঝারী, ছোট সকল ধরনের আলাদা আলাদা আমরা-তো শ’ হিসেবে খুচরা বিক্রেতাদের কাছে বিক্রি করছি।
তাতে প্রতি পিচ ১১০ থেকে ১৫০ টাকা পড়ছে, আবার ৭০ থেকে ৮০ টাকা, ৪০ থেকে ৬০ টাকা পিচেও বিক্রি করে দিচ্ছি। খুচরা বিক্রেতারা তো পিচ ভুলে গিয়ে অধিক লাভের আশায় কেজিতে বিক্রি করছে। একটি ভাল মানের তরমুজ ৫০০ থেকে ৬০০ টাকায় ওজনে বিক্রি করছে, মধ্যম সাইজের তরমুজ ৩০০ থেকে ৪০০ টাকায়, সব থেকে নিম্নমানের ছোট তরমুজ ১৫০ থেকে ২৫০ টাকা বিক্রি করছে।
রমজান মাস, করোনার মহামারী, লকডাউন সব মিলিয়ে জরজতি মানুষ, নিত্য প্রয়োজনীয় জিনিস পত্রে বাজার উর্ধ্বগতি আয়ের সাথে তাল মিলাতে হিমশিম খেতে হচ্ছে। তারপর নেই কোন বাজার মানিটারিং ব্যবসায়ীদের ইচ্ছে মত দাম বাড়িয়ে সাধারন মানুষের নাভী শ্বাঃস করে তুলছে যারফলে সব জিনিসের দাম ক্রয় ক্ষমতার বাইরে মানুষ এখন নাকাল।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here