লোহাগড়ায় মোর্শেদা ক্লিনিকে রোগীকে ও পজেটিভ রক্তের পরিবর্তে বি পজেটিভ রক্ত পুষ করার অভিযোগ

0
57

লোহাগড়া প্রতিনিধি
নড়াইলের লোহাগড়া পৌর শহরের সিএনবি চৌরাস্তায় মোর্শেদা ক্লিনিকে একজন রোগীর শরিরে ও পজেটিভ রক্তের পরিবর্তে বি পজেটিভ রক্ত পুষ করায় জনরোষের শিকার হন ক্লিনিক মালিক । পরে পুলিশ ঘটনা স্থলে এসে ক্লিনিক মালিককে উদ্ধার করে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনে। এ ঘটনায় এলাকায় তোলপাড় সৃষ্টি হয়েছে।
রোগীর স্বজনরা ও পুলিশ সুত্রে জানা গেছে, উপজেলার ইতনা ইউপির পাংখারচর গ্রামের আরকান ওরফে ওলিয়ার মোল্যার স্ত্রী আকলিমা বেগম খুশি (৪৫)কে জরয়ায়ু টিউমার অপারেশনের জন্য গত ১ এপ্রিল (বৃহস্পতিবার) বিকালে লোহাগড়ার সিএনবি চৌরাস্তায় মোর্শেদা ক্লিনিকে ভর্তি করে। এসময় রোগীর স্বজনদের সাথে ক্লিনিক মালিক জাকির হোসেনের অপারেশনের জন্য ১৫০০০ হাজার টাকা কন্ট্রাক হয়। এক পর্যায়ে পরের দিন শুক্রবার সকাল ১০ টায় ডাঃ তাজরুল ইসলাম তাজের মাধ্যমে ওই রোগীকে ১ম দফায় অপারেশন করা হয়। পরে সন্ধ্যায় আবারও ২য় দফায় অপারেশন করে। অপারেশনের পর ক্লিনিক মালিক জানায় রোগীর শরিরে রক্তের প্রয়োজন পরে রোগীর শরীরে রক্ত পুষ করে।
রোগীর ভাই শেখ সোহেল অভিযোগ করে বলেন, “আমার বোনের শরিরে ২ বার অপারেশন করা হয়েছে এবং ও পজেটিভ রক্তের পরিবর্তে ক্লিনিক মালিক ভুল করে বি পজেটিভ রক্ত পুষ করেছে। যার কারনে আমার বোনের শারিরিক অবস্থা আস্তে আস্তে অবনতি হয়ে পড়ে ও মঙ্গলবার সন্ধ্যায় আরও অবনতি হয়ে পড়ে”।
পরে এ ঘটনা চাওর হলে স্থানীয় লোকজন ও রোগীর স্বজনরা ক্ষিপ্ত হয়ে ক্লিনিক মালিক জাকির হোসেনকে অবরুদ্ধ করে রাখে। পরে লোহাগড়া থানা পুলিশ খবর পেয়ে থানার এসআই সাইফুল ইসলামসহ একদল পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছায়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনে।
কিনিক মালিক জাকির হোসেন বলেন, রোগীর শরিরে রক্ত ক্রসিং করে বি পজেটিভ রক্ত দেয়া হয়েছে। রোগীর অবস্থা ভাল, তবে তাকে আরও উন্নত চিকিৎসার জন্য আমার তথ্যাবধায়নে খুলনা সিটি মেডিকেলে ভর্তি করা হয়েছে।
লোহাগড়া থানার এসআই সাইফুল ইসলাম বলেন, খবর পেয়ে ওই ক্লিনিকে যেয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনি।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here