বাজারে আসছে মুখে খাওয়ার করোনা টিকা ‘ওরাভ্যাক্স কোভিড-১৯’

0
14

সত্যপাঠ ডেস্ক
পোলিও টিকার মুখে খাওয়ার ক্যাপসুলের মতো করোনা প্রতিষেধক তৈরি করেছে ভারতেরই ওষুধ প্রস্তুতকারী সংস্থা। ভারতীয় সংবাদমাধ্যম দ্য হিন্দু ও কলকাতাভিত্তিক আনন্দবাজার পত্রিকা জানিয়েছে, ভারতের ‘প্রেমাস বায়োটেক’ ও ইসরায়েলের ‘ওরামেড ফার্মাসিউটিক্যালস’-এর যৌথভাবে তৈরি করোনা টিকার নাম দেওয়া হয়েছে ‘ওরাভ্যাক্স কোভিড-১৯’।
গত ১৯ মার্চ দুই কোম্পানির পক্ষ থেকে এই টিকার কথা ঘোষণা করা হয়। দাবি করা হয়, করোনা প্রতিরোধে কার্যকর ভূমিকা রাখতে এই টিকার একটি ডোজই যথেষ্ট। অর্থাৎ অন্য টিকার মতো একাধিক ডোজ নিতে হবে না।
দ্য হিন্দু ও আনন্দবাজার পত্রিকা জানিয়েছে, শুক্রবার (১৯ মার্চ) টিকা আনার কথা ঘোষণা করতে গিয়ে প্রেমাস জানিয়েছে, এখনও পর্যন্ত শুধু প্রাণীদেহেই পরীক্ষা করা হয়েছে এই টিকাটি। তবে প্রথম ডোজেই রোগপ্রতিরোধে কার্যকারিতার প্রমাণ দিয়েছে ওরাভ্যাক্স। প্রথম ডোজ নেওয়ার পরই দেখা গেছে, শ্বাসনালী এবং খাদ্যনালীকে সংক্রমণের হাত থেকে বাঁচানোর কাজ শুরু করে দিয়েছে এই টিকা।
প্রেমাসের ব্যাখ্যা অনুযায়ী, এই টিকা রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা যেমন বাড়িয়েছে, তেমনই উন্নত করেছে রোগ প্রতিরোধক প্রতিক্রিয়া বা ইমিউন রেসপন্সও। শরীরের অ্যান্টিবডিগুলিকে প্রশমন করে নিয়ন্ত্রণ করতে পেরেছে এই টিকা। তাতেই বেড়েছে এর কার্যকারিতা। সংস্থাটি জানিয়েছে, এ বছর সেপ্টেম্বর থেকে মানবদেহে এই টিকার প্রভাব পরীক্ষা করা হবে।
দেশের স্বাস্থ্যবিশেষজ্ঞদের কথায় এর আগেও পোলিও টিকাকরণের ক্ষেত্রে ওরাল ভ্যাকসিন উপযোগী বলে প্রমাণ হয়েছে। সে ক্ষেত্রে টিকাকরণে সূচের ব্যবহার কমলে, টিকার খরচের পাশাপাশি সূচের মাধ্যমে সংক্রমণের আশঙ্কাও কমবে বলে মত তাদের।
আনন্দবাজার পত্রিকার প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, করোনা ভাইরাস যে শরীরের প্রোটিনে ভর করেই ছড়ায় তা এর আগে বহুবার বলেছেন বিশেষজ্ঞরা। ওরাভ্যাক্স টিকাটিও প্রোটিন নির্ভর। আবার এতে ভাইরাসের কিছু বৈশিষ্ট্যও আছে। যা সার্স কোভ-২ ভাইরাসের বিরুদ্ধে ত্রিস্তরীয় নিরাপত্তা দেবে বলে দাবি করেছে প্রেমাস।
এদিকে এরই মধ্যে ভারতের নিজস্ব টিকা কোভ্যাক্সিন প্রস্তুতকারী সংস্থা ভারত বায়োটেকও ন্যাজাল ভ্যাকসিন বা নাক দিয়ে নেওয়ার টিকা তৈরি করেছে। উইসকনসিন বিশ্ববিদ্যালয়ের সঙ্গে যৌথ ভাবে তৈরি ওই টিকার এরই মধ্যে মানবদেহে পরীক্ষা নিরীক্ষার কাজ শুরু হয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here