প্রতারণার অভিযোগে আর্স বাংলাদেশের কর্মকর্তা ও জামিদারের বিরুদ্ধে মামলা যশোরে

0
8

 

বিশেষ প্রতিনিধি

আর্স বাংলাদেশ এর কর্মসূচী সংগঠক মফিজুর রহমান মাঠ পর্যায় কর্মরত থাকা অবস্থায় ক্ষমতা অপব্যবহার ও জালিয়াতি করে বিভিন্ন সদস্যদের কাছ থেকে আদায়কৃত ৭ লক্ষাধিক টাকা আত্মসাতের অভিযোগে দু’জনের বিরুদ্ধে কোতয়ালি মডেল থানায় মঙ্গলবার মামলা হয়েছে। মামলায় আসামীরা হচ্ছে, যশোরের মণিরামপুর উপজেলার লাউড়ী গ্রামের মৃত আনোয়ার হোসেনের ছেলে মফিজুর রহমান ও একই উপজেলার কাশিপুর গ্রামের সিরাজুল ইসলামের স্ত্রী তহমিনা সিরাজ।

আর্স বাংলাদেশ, প্রধান কার্যালয় বাড়ি নং ২৩০ ,কিসমত নওয়াপাড়া উপশহর এর প্রশাসনিক কর্মকর্তা মাহফুজুল হক বাদি হয়ে মামলাটি করেন। মামলায় তিনি উল্লেখ করেন, উক্ত আসামী মফিজুর রহমান প্রতারণার মাধ্যমে এমএফআই/ এনজিও প্রতিষ্ঠান আর্স বাংলাদেশ এর টাকা নিয়ে পলায়নকারী ও প্রাণ নাশের হুমকীদাতা এবং তার জামিনদার তহমিনা সিরাজ জড়িত। মামলায় বলেন, মফিজুর রহমান বিগত ১/৯/১৫ইং আর্স বাংলাদেশ এ কর্মসূচী সংগঠক হিসেবে যোগদান করে সর্বশেষ সংস্থার কমপ্লেক্স শাখা,জগহাটি যশোর সদর এ গত ৩/৯/১৬ ইং তারিখে যোগদা করে ১৪/১০/২০ ইং তারিখ পর্যন্ত সিনিয়র কর্মসূচী সংগঠক পদে কর্মরত ছিল। কর্মরত থাকা অবস্থায় মাঠ পর্যায়ে ক্ষমতার অপব্যবহার ও জালিয়াতি করে সে বিভিন্ন সদস্যদের কাছ থেকে ৭লাখ ২৩ হাজার ৪শ’ ১ টাকা আত্মসাত করে এবং কৌশলে সদস্যের নিকট থেকে অধিকাংশ পাশবই নিয়ে যায়। অডিট মনিটরিংকালে অর্থ আত্মসাতের প্রমানাদি উদঘাটিত হলে তাকে  সংস্থা অন্যত্র বদলী  করে। বদলী হওয়ার পর সে বদলীকৃত শাখায় যেতে অস্বীকৃতি জানিয়ে গত ৭/৯/২০ ইং তারিখ সংস্থা থেকে পদত্যাগ করে। সংস্থা মফিজুর রহমানের সাথে বিষয়টি মিমাংসার জন্য তাগিত দিয়ে আসছিল। তবে সে আত্মসাতকৃত টাকা ফেরত দিবে না বলে গত ৪/২/২১ তারিখে প্রধান কার্যালয়ে এসে জানায় এবং অফিসে কর্মরত কর্মকর্তাদের সাথে খারাপ ব্যবহার করে ও বিভিন্ন হুমকী দেয়। সংস্থার নির্বাহী পরিচালকের মোবাইল নাম্বারে ফোন করে প্রাণ নাশের হুমকী পর্যন্ত দিচ্ছে। মফিজুর রহমানের চাকুরী পূর্বে জামিনদার হিসেবে তহমিনা সিরাজ  মফিজুর রহমানের কর্মকান্ডের সকল দায়-দায়িত্ব গ্রহন করায় তাকে এই মামলায় আসামী করা হয় বলে মাহফুজুল হক জানান।#

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here